দুপুর ১২:১৬ শুক্রবার ২৭শে নভেম্বর, ২০২০ ইং

ব্রেকিং নিউজ:

কুমিল্লা দেবিদ্বারে ৫০ টাকার লোভ দেখিয়ে ৭ বছরের শিশুকে ধর্ষণ। | কুমিল্লা সদরে ডিবি পুলিশের অভিযানে অস্ত্র ও ৫ শত পিছ ইয়াবাসহ এক এক যুবক। | সিলেট চেম্বারের পরিচালনা পরিষদের ২০১৯-২০২১ সাল মেয়াদের দ্বি-বার্ষিক নির্বাচন অনুষ্ঠিত | কুমিল্লা সদর দক্ষিণে যাত্রীবাহি বাসচাপায় ৩ মোটরসাইকেল আরোহী নিহত। | মাধবপুরে দুই কেজি গাঁজা সহ ২ মাদক পাচারকারী আটক | ছেলের জন্য সকলের কাছে দোয়া চাইলেন ক্রিকেটার রুবেল | পুত্র সন্তানের বাবা হলেন রুবেল, মা-ছেলে দুজনেই সুস্থ আছেন | মাদক চোরাকারবারীদের ফাঁদে পরে, বিলিনের পথে মাধবপুরের চা শিল্প! | কুমিল্লা সদরে ট্রেনে কাটা পড়ে দুই ষ্কুল শিক্ষার্থী নিহত। আহত-৩ | কুমিল্লায় গোয়েন্দা পুলিশের অভিযানে ৫ হাজার পিছ ইয়াবাসহ সাংবাদিক শামীম আটক। |

বিদায়ী জিদানকে শুভেচ্ছা জানালেন না রিয়ালের শুধু বেল!

নিউজ ডেস্ক | জাগো প্রতিদিন .কম
আপডেট : June 1, 2018 , 8:48 am
ক্যাটাগরি : খেলাধুলা
পোস্টটি শেয়ার করুন

বৃহস্পতিবার জরুরী এক সংবাদ সম্মেলন ডেকে রিয়াল মাদ্রিদের কোচের পদ থেকে আচমকা পদত্যাগের ঘোষণা দিয়েছেন জিনেদিন জিদান। এই আর ঘোষণায় পুরো ফুটবল দুনিয়া স্মস্তিভ, হতবাক। বিস্ময়ে বিমূঢ় রিয়াল মাদ্রিদের খেলোয়াড়েরাও। তবে সেই বিস্ময় সরিয়ে রেখে রিয়ালের সব খেলোয়াড়ই বিদায়ী শুভেচ্ছা জানিয়েছেন বিদায়ী কোচকে। ফরাসি মহানায়ককে বিদায়ী শুভে্চ্ছা জানাননি কেবল রিয়ালের এতকজন, গ্যারেথ বেল। ২০১৬ সালের জানুয়ারিতে রিয়ালের প্রধান কোচের দায়িত্ব নেন জিদান। কি এক জাদুর কাঠি হাতে নিয়েই যেন রিয়ালের কোচের দায়িত্ব গ্রহণ করেন ফরাসি মহানায়ক। এমন অনভিজ্ঞ একজনকে রিয়াল মাদ্রিদের মতো বিশ্বসেরা ক্লাবের কোচ করায় ভ্রু’কুচকান অনেকেই। কিন্তু নিজের কারিশমায় জিদান নিন্দুকদের মুখে কুঁলুপ এঁটে দেন প্রথম ম্যাচেই। রাফায়েল বেনিতেজের অধীনে খাবি খাচ্ছিল যে রিয়াল, সেই দলটিই জিদানের অধীনে প্রথম ম্যাচেই পায় বড় জয়। শুরুর সেই চমক অব্যাহত রেখে জিদান রিয়ালকে করে তোলেন অপ্রতিরোধ্য বিশ্বসেরা। কোচ হিসেবে জিদানকে পেয়ে রিয়ালের খেলোয়াড়দের যেন পুর্নজন্ম হয়! সবাই সাফল্যবুভুক্ষু হয়ে জ্বলে উঠেন মাঠে। শুধু খেলোয়াড়দের নবউদ্যোমে জাগিয়ে তোলাই নয়, দুর্দান্ত দিক নির্দেশনায় জিদান রিয়ালের ড্রেসিংরুমটাকে বানিয়ে ফেলেন ‘শান্তির নীড়’। খেলোয়াড় হিসেবে জিদান ছিলেন বিশ্বসেরা। খেলোয়াড়েরা তাই অকুণ্ঠচিত্তেই মেনে নেন জিদানের শলা-পরামর্শ। কোচ মানেই কড়া হেডমাস্টার নয়। কোচ মানে বন্ধুও। জিদান বেছে নিয়েছিলেন দ্বিতীয় এই পথটাই। খেলোয়াড়দের করে নিয়েছিলেন বন্ধু। তো সেই বন্ধুর বিদায়ে হৃদয় তো কাঁদবেই। সার্জিও রামোস, ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো, করিম বেনজেমা মার্কো এসেনসিও, লুকা মড্রিচ, টনি ক্রুস থেকে শুরু করে ভারানে, কারবাহাল, লুকাজ ভাজকুয়েজ-রিয়ালের সব খেলোয়াড়ই কোচ জিদানের বিদায়ে বেদনাহত। সামাজিক যোগাযোগের সবাই বিদায়ী গুরুকে জানিয়েছেন শুভেচ্ছা। আবেগি ভাষায় নিজেদের প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেছেন সবাই। রামোস-রোনালদোরা বিদায়ী শুভেচ্ছা বার্তায় ঠিক কি লিখেছেন তা জানা যায়নি। তবে তাদের সবার প্রতিক্রিয়ার ভাষাই ছিল আবেগী। তবে বাকি সবাই জলে টলমল চোখে বিদায়ী শুভেচ্ছা জানালেও গ্যারেথ বেল প্রতিক্রিয়া কোনো জানাননি! কোচ জিদানের বিদায় নিয়ে টু-শব্দটিও করেননি ‍তিনি। বেল বিদায়ী জিদানকে শুভেচ্ছা জানাননি কেন? কারণটা স্পষ্টই। সান্তিয়াগো বার্নাব্যুতে পাতা জিদানের ‘সুখের সংসারে’ একটু-আধটু অশান্তিও ছিল। বাকি সবার সঙ্গে খাঁটি বন্দুত্বের সম্পর্ক পাতলেও গ্যারেথ বেলের সঙ্গে শেষ দিকে জিদানের সম্পর্কটায় ফাটল ধরেছিল। মন কষাকষি হয়েছিল ইসকোর সঙ্গেও। তবে শেষ দিকে ইসকোকে ঠিকই বুঝিয়ে সুজিয়ে বাগে এনেছিলেন জিদান। কিন্তু গ্যারেথ বেলের সঙ্গে সম্পর্কটা জোড়া লাগেনি, বরং দিনে দিনে তাদের সম্পর্কের ফাটলটা আরও হয়েছে। জিদান যে রিয়ালকে টানা তিনটি চ্যাম্পিয়ন্স লিগ শিরোপা জেতানোর পরও হুট করে বিদায় জানালেন, তার পেছনে বেলের ইস্যুটিও অন্যতম কারণ বলে জানা গেছে। বিদায়ী শুভেচ্ছা না জানিয়ে বেল যেন প্রমাণ করেই দিলেন, কোচ জিদানের সঙ্গে সম্পর্কটা মোটেও ভাল ছিল না তার। তার বিদায়ী তিনি তাই তলেতলেই খুশিই!