বিকাল ৪:০০ বৃহস্পতিবার ৩রা ডিসেম্বর, ২০২০ ইং

ব্রেকিং নিউজ:

কুমিল্লা দেবিদ্বারে ৫০ টাকার লোভ দেখিয়ে ৭ বছরের শিশুকে ধর্ষণ। | কুমিল্লা সদরে ডিবি পুলিশের অভিযানে অস্ত্র ও ৫ শত পিছ ইয়াবাসহ এক এক যুবক। | সিলেট চেম্বারের পরিচালনা পরিষদের ২০১৯-২০২১ সাল মেয়াদের দ্বি-বার্ষিক নির্বাচন অনুষ্ঠিত | কুমিল্লা সদর দক্ষিণে যাত্রীবাহি বাসচাপায় ৩ মোটরসাইকেল আরোহী নিহত। | মাধবপুরে দুই কেজি গাঁজা সহ ২ মাদক পাচারকারী আটক | ছেলের জন্য সকলের কাছে দোয়া চাইলেন ক্রিকেটার রুবেল | পুত্র সন্তানের বাবা হলেন রুবেল, মা-ছেলে দুজনেই সুস্থ আছেন | মাদক চোরাকারবারীদের ফাঁদে পরে, বিলিনের পথে মাধবপুরের চা শিল্প! | কুমিল্লা সদরে ট্রেনে কাটা পড়ে দুই ষ্কুল শিক্ষার্থী নিহত। আহত-৩ | কুমিল্লায় গোয়েন্দা পুলিশের অভিযানে ৫ হাজার পিছ ইয়াবাসহ সাংবাদিক শামীম আটক। |

কানের ৮২ নারী এক মঞ্চে

নিউজ ডেস্ক | জাগো প্রতিদিন .কম
আপডেট : May 13, 2018 , 10:50 am
ক্যাটাগরি : নির্বাচিত,বিনোদন
পোস্টটি শেয়ার করুন

৭১তম কান চলচ্চিত্র উৎসবে এক মঞ্চে দাঁড়িয়েছিলেন উৎসব সংশ্লিষ্ট ৮২ জন নারী। ‘মি টু’ আন্দোলনে সমর্থন জানিয়েছেন সবাই।

উৎসবের প্রতিযোগিতা বিভাগের জুড়ি বোর্ডের প্রধান কেট ব্ল্যানচেট, ফরাসি অভিনেত্রী, গায়িকা ও গীতিকার মাহিয়ো কুটিয়া, যুক্তরাষ্ট্রের পরিচালক পেটি জেনকিন্সসহ অন্যান্য নারী পরিচালক ও শিল্পীরা চলচ্চিত্র দুনিয়ায় নারীদের নিরাপদ ও সম্মানজনক অবস্থানের জন্য কণ্ঠ মেলান।

১৯৪২ সাল থেকে শুরু হওয়া কান চলচ্চিত্র উৎসবে এবারই সর্বোচ্চ ৮২ জন নারী পা রেখেছে উৎসব থিয়েটার প্যালাইসের সিড়িতে। অথচ একই সময়ে সিড়ি ভেঙেছে ১৮৬৬ জন পুরুষ পরিচালক।

কেট ব্ল্যানচেট বলেন, ‘নারী হিসেবে আমাদের বিভিন্ন রকম সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়। কিন্তু আজ আমরা এই মঞ্চে দাঁড়িয়ে আছি আমাদের এগিয়ে যাওয়ার শপথে। এখানে আমরা সবাই সিনেমার উন্নতির জন্য কাজ করি।’

ব্ল্যানচেটের কথা শেষে কথা বলেন আগনেস ভার্ডা। ফ্রান্সের এই বিখ্যাত পরিচালক বলেন, ‘আমাদের চলচ্চিত্র শিল্পের সিড়ি সবার জন্য উন্মুক্ত, চলো জয় করি।’

নারীর প্রতি অসদাচরণ ও কর্মক্ষেত্রে নারীকে হয়রানির থেকে বাঁচতে হার্ভি ওয়াইনস্টিনসহ তাদের মতো লোকদের নিয়ে সচেতনতা তৈরির আহ্বান আসে মঞ্চ থেকে।

বলা হয়, কর্মক্ষেত্রে নারীকে অসম্মান, বঞ্চিত ও হয়রানির বিষয়ে আন্তর্জাতিকভাবে সচেতনতা বৃদ্ধি করতে ‘হার্ভি ডে’ নামে একটা দিবস চালু করতে হবে। এই কথা শুনে মঞ্চের সবাই একসঙ্গে উল্লাস করে ওঠেন।

ফেষ্টিভ্যাল থেকে ‘মি টু’ ও ‘টাইমস আপ’ আন্দোলনের ডাক ভালোভাবে দেয়া হয়নি বলে অভিযোগ করা হয় অনুষ্ঠানে। যৌন হয়রানির বিরুদ্ধে কাজ করা এই দুই আন্দোলনকে ভালোভাবে প্রচার করা হচ্ছে না বলে মন্তব্য করেন নারীরা।

আলোচনা, সচেতনতা ও এক হয়ে সুন্দর আগামীর স্বপ্ন জাগিয়ে আলোচকরা কানে নারীদের বেশি করে অংশগ্রহণ করার আহ্বান জানান।